শনিবার, ০১ অক্টোবর ২০২২, ১৫ আশ্বিন ১৪২৯

আজ জাতীয় শিশু-কিশোর সংগঠন “খেলাঘর” এর ৬৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী

আজ ২ মে ২০২০ ইং তারিখ। দেশের সর্বপ্রথম প্রতিষ্ঠিত দেশের প্রাচীনতম জাতীয় শিশু-কিশোর সংগঠন
“খেলাঘর” এর ৬৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী।১৯৫২ সালের ২ মে পুরান ঢাকার বংশালে দৈনিক সংবাদ পত্রিকা অফিসে সংগঠনটির যাত্রা শুরু করে। যারা সংগঠনটি প্রতিষ্ঠা করেন তারা হলেন- সত্যেন সেন, রনেশ দাস গুপ্ত, শহিদ শহিদুল্লাহ কায়সার, কবি হাবিবুর রহমান প্রমুখ।প্রতি বছর দিনটিকে স্বরণে রাখার জন্য কেন্দ্রীয় ভাবে এবং সারা দেশের শাখা আসর গুলো বিভিন্ন অনুষ্ঠানের আয়োজন করে থাকেন।

কিন্তু পবিত্র রমজান ও করোনা মহামারির কারণে আজ কোন প্রকার আয়োজন নেই। তবে আজ বিকাল ৪টায় কেন্দ্রীয়ভাবে সারা দেশ থেকে আগত শাখা আসর গুলোর অনুষ্ঠানের অংশ বিশেষ ইউটিউব ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইজবুকে আপলোড করা হবে বলে জানান, কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সাধারন সম্পাদক এড. সুণীল কুমার সরকার মিন্টু ও সাহাবুল ইসলাম বাবু।কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক প্রণয় সাহা জানান, দেশে খেলাঘরের মোট ৬শ’র অধিক শাখা আসর আছে।প্রথম শাখা আসর হিসেবে চিরস্বরণীয় হয়ে আছে ঢাকার জেলখানা রোডে দীন মোহাম্মদ নবীর নেতৃত্বে গঠিত “আমাদের খেলাঘর” নামের শাখা আসর।তাছাড়াও বরিশালের “জাগ্রিহী” খেলাঘর আসরটিও অতি প্রাচীন। এদিকে কেন্দ্রীয় কমিটির চেয়ারম্যান শহিদ জায়া অধ্যাপিকা পান্না কায়সার খেলাঘরের সকল সহকর্মী ভাই-বোনদের ও দেশবাসিকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।
তাছাড়াও করোনায় আক্রান্ত সকলের দ্রুত আরোগ্য ও মৃতদের বিদেহি আত্নার মাগফেরাত কামনা করেছেন। সকলকে করোনা মোকাবেলায় নিজ নিজ ঘরে অবস্থান ও যে কোন সাবান দিয়ে অন্তত্য ২০ সেকেন্ড হাত ধোয়ার জন্য পরার্মশ দেন।স্ব অর্থায়নে পরিচালিত মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় প্রতিষ্ঠিত এ প্রাচীনতম সংগঠনের কোন স্থায়ী কার্যালয় নাই। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি সংগঠনের পক্ষ থেকে ঢাকায় একটি স্থায়ী কার্য়ালয়ের জন্য দেশের ৬০০ এর অধিক শাখা আসরের শিশু-কিশোর ও কর্মী, সংগঠকরা জোড় দাবি