মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১২ আশ্বিন ১৪২৯

ঘরে করোনা রোগীর যত্ন নেবেন যেভাবে

করোনাভাইরাস আক্রান্ত হলেই হাসপাতালে ভর্তি হতে হবে বা যেতে হবে এমন নয়। এই ভাইরাসে আক্রান্ত হলে ঘরে থেকেও আপনি চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হতে পারেন।

করোনায় আক্রান্ত হলে সাধারণত জ্বর, সর্দি-কাশি ও গলাব্যথার সমস্যা দেখা দেয়। এসব সমস্যা হলে ঘরে থেকে নিয়ম মেনে ওষুধ খেলে আপনি সুস্থ হতে পারবেন। তবে শুধু শ্বাসকষ্টের সমস্যা দেখা দিলে আপনাকে হাসপাতালে যেতে হবে।

পরিবারের কেউ যদি আক্রান্ত হয়, এ অবস্থায় জানতে হবে কীভাবে ঘর থেকে তাকে দেখাশোনা করবেন। এ ছাড়া এ সময় তার চিকিৎসা কী হবে?

ভারতের মুম্বাই অ্যাপোলো হাসপাতালের সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞ ড. লক্ষ্মণ জেসানি এ বিষয়ে কিছু পরামর্শ দিয়েছেন।

আসুন জেনে নিই আক্রান্ত হওয়ার পর ঘর থেকে কীভাবে রোগীর পরিচর্যা করতে হবে-

১. পরিবারের কেউ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হলে অন্যদের নিরাপদে রাখতে সংক্ৰমিত রোগীকে একা বাথরুমসহ একটি ঘরে রাখতে হবে।

২. রোগীর সঙ্গে কথা ও দেখাশোনার সময় মাস্ক ও গ্লাভস ব্যবহার করুন।

৩. রোগীর সঙ্গে এক মিটার দূরত্ব বজায় রেখে ওষুধ ও খাবার খাওয়ান।

৪. সংক্ৰমিত ব্যক্তির কাছে গেলে বারবার সাবান পানিতে হাত ধুতে হবে। এ ছাড়া অ্যালকোহলযুক্ত স্যানিটাইজার ব্যবহার করতে পারেন।

৫. শিশু ও বয়স্কদের আক্রান্ত রোগীর থেকে দূরে রাখুন।

৬. এ সময় রোগীকে প্রচুর পরিমাণে পানি, ফলের জুস ও হালকা গরম স্যুপ খেতে দিন। আদা, গোলমরিচ, লবঙ্গ দিয়ে চা পান করলে উপকার পাবেন। মাছ, মুরগির মাংস, ফলসহ পুষ্টিকর খাবার খাওয়ান।

৭. শ্বাসকষ্ট হলে চিকিৎসক ও হাসপাতালের সঙ্গে যোগাযোগ রাখতে হবে। প্রয়োজনে হাসপাতালে যাওয়ার প্রস্তুতি রাখুন।

৮. করোনাভাইরাসের উপসর্গ থাকলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিয়ে ১৪ থেকে ১৭ দিন আইসোলেশনে থাকতে হবে। আর হালকা জ্বর হলে ১০ দিন নিজেকে আলাদা রাখুন।

করোনায় আক্রান্ত হলে আতঙ্কিত হবেন না। নিয়ম মেনে চললে সুস্থ হবেন।